কুয়েতে রিমাণ্ডে বাংলাদেশী সাংসদ পাপলু

সংবাদ

মানবপাচারের অভিযোগে কুয়েতে গ্রেপ্তার হয়েছেন লক্ষীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য কাজী শহীদ ইসলাম ওরফে পাপুল। এবার তাকে রিমান্ডে নেওয়ার আদেশ দেওয়া হয়েছে কুয়েতের পাবলিক প্রসিকিউটরের পক্ষ থেকে। দেশটির সিআইডির আবেদনের প্রেক্ষিতে গতকাল এই আদেশ দেওয়া হয়। খবর দুবাইয়ের প্রভাবশালী সংবাদপত্র গালফ নিউজের।

গত শনিবার এমপি পাপুলকে আটক করে কুয়েতের সিআইডি (ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেশন ডিপার্টমেন্ট)। এতদিন সিআইডির হেফাজতে রেখেই তাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। এবার অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে রিমান্ডে নেওয়া হল। জানা যায়, তিনি প্রাথমিকভাবে মানবপাচার ও অবৈধ মুদ্রা পাচারের কথা স্বীকার করে নিয়েছেন।

শুরুতে পাঁচ অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসীকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করে কুয়েতের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। তারা প্রত্যেকেই সাংসদ পাপুলকে ৩ হাজার দিনার করে দিয়েছেন। এছাড়া প্রতিবছর ভিসা নবায়নের জন্য মোটা অংকের টাকা দিতে হয় তাকে। ওই পাঁচজনের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী গত শনিবার আটক করা হয় পাপুলকে। জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, এমন অসংখ্য মানবপাচারের সঙ্গে জড়িত এই সংসদ সদস্য।