দেশের সংস্কার প্রয়োজন: ভিপি নুর

রাজনীতি

কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আলজাজিরায় সম্প্রতি বাংলাদেশ নিয়ে প্রচারিত প্রতিবেদনটি মিথ্যা নয় বলে দাবি করেছেন সাবেক ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুর। তিনি সরকারের প্রতি চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে বলেছেন, সরকার যদি প্রতিবেদন পুরোপুরি মিথ্যা প্রমাণ করতে পারে তিনি স্বেচ্ছায় ফাঁসিবরণ করবেন।

শুক্রবার রাজধানীর শাহবাগে অবস্থিত জাতীয় জাদুঘরের সামনে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তৃতা দেওয়ার সময় এসব কথা বলেন তিনি। ‘ছাত্র-শিক্ষক-জনতা’র ব্যানারে এর আয়োজন করা হয়।

বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশনের ঢাকা মহানগরের সভাপতি সৈকত আরিফের পরিচালনায় সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- গণসংহতি আন্দোলনের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সমন্বয়ক আবুল হাসান রুবেল, রাষ্ট্রচিন্তার সদস্য কবি ও লেখক রাখাল রাহা, ছাত্র ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সভাপতি গোলাম মোস্তফা, বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি বিন ইয়ামিন মোল্লা, যুব অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক মোহাম্মদ আতাউল্লাহ, শ্রমিক অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক আব্দুর রহমান, বৃহত্তর চট্টগ্রাম পাহাড়ী ছাত্র পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক অমল ত্রিপুরা, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ১০ মাস কারাভোগকারী ইমতিয়াজ আহমেদ।

সমাবেশে নুরুল হক নুর বলেন, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনকে সরকার অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করছে। ভিন্নমত এবং বিরোধী দলের মানুষের ওপর দমনপীড়ন করার জন্য এই আইন ব্যবহার করা হচ্ছে। এই আইনের ধারায় যা লেখা রয়েছে, তার অপপ্রয়োগ করছে সরকার। সরকার বলছে, আইনের ধারায় মামলা হয়, আইন তার নিজস্ব গতিতে চলবে। আইনের শাসন আমরা প্রতিষ্ঠা করতে চাই এ কথাটি এখন বললে ভুল হবে। বরং বলতে হবে আইনের নৈতিক শাসন আমরা চাই।

তিনি বলেন, আলজাজিরার প্রতিবেদনটি আন্তর্জাতিকভাবে গুরুত্ব সহকারে দেখা হলেও এই সরকার একে তুড়ি মেরে উড়িয়ে দিচ্ছে। এই দেশের সংস্কার প্রয়োজন, আইন কানুনের সংস্কার প্রয়োজন। অন্যথায় দেশ একটি অকার্যকর রাষ্ট্রে পরিণত হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *