পুরো শহরটাকে নতুন করে নান্দনিক রূপে সাজাচ্ছি: সিসিক মেয়র আরিফ

সারাদেশ

সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেছেন, দেড়-দুই মাসের ভেতরে সিলেট হবে অন্যরকম এক নগরী। আমরা পুরো শহরটাকে নতুন করে নান্দনিক রূপে সাজাচ্ছি। পর্যায়ক্রমে বন্দর থেকে টিলাগড়সহ নগরীর বিভিন্ন রাস্তা কোর্ট পয়েন্ট-চৌহাট্টা সড়কের মতো হবে দৃষ্টিনন্দন। চৌহাট্টা থেকে আম্বরখানা পর্যন্ত রাস্তার বিভাজকে ভিন্নরকম গ্রিল স্থাপন করা হবে এবং দুপাশের ফুটপাতকে সুন্দর ওয়াকওয়ে রূপে গড়ে তুলা হবে। এ লক্ষ্যে কাজও অনেকদূর এগিয়ে গেছে।

বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে সিলেট নগরীর চৌচাট্টায় উন্নয়ন কাজ পরিদর্শনে গিয়ে মেয়র এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, সিলেট নগরী সবার। সিলেটকে উন্নত, ডিজিটাল ও ব্যতিক্রমী নগরী হিসেবে গড়ে তুলতে মহাপরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। ইতোমধ্যে ট্রাক টার্মিনাল বড় করে অন্যত্র নেয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনালেও উন্নয়ন কাজ করে বড় করা হয়েছে। ছোট গাড়িগুলোর জন্য ইতোমধ্যে ৪টি জায়গা নির্ধারণের জন্য মন্ত্রণালয়ে চিঠি প্রেরণ করা হয়েছে। পাশাপাশি গাড়ি চলাচলের ক্ষেত্রে আমরা ভিন্ন পরিকল্পনা নিচ্ছি। আম্বরখানা, মদিনা মার্কেট, নাইওরপুলসহ গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলোকে নিয়ে আমাদের অন্যরকম পরিকল্পনা আছে।

সিলেটের উন্নয়নের ব্যাপারে কোনো দল নেই বলে মন্তব্য করে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, আমি একটা দলে বিশ্বাস করি, একটা আদর্শে বিশ্বাস করি, লালন করি। এটা আমার ব্যক্তিগত ব্যাপার। কিন্তু সিলেট মহানগরীর উন্নয়নে আমি সবার সহযোগিতা চাই।

তিনি আরও বলেন, চলমান এই উন্নয়নে আমাকে সবাই সহযোগিতা করছেন। আর এই উন্নয়নকে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে সকল মহলের সহযোগিতা থাকবে। আমার বিশ্বাস আমাদের এই উন্নয়ন কাজ শেষ হলে সিলেট শুধু বাংলাদেশের মধ্যে নয়, বিশ্বের অন্যতম সুন্দর একটি সিটি হিসেবে পরিচিতি লাভ করবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *