বাবরী মসজিদের জায়গায় কাল থেকে শুরু হচ্ছে রাম মন্দিরের কাজ

আন্তর্জাতিক

ভারতের বহুল আলোচিত বাবরি মসজিদ নিয়ে আদালতের রায় হয়েছে গত বছরের শেষ দিকে। সেখানে বলা হয়েছে যে, বাবরি মসজিদের জায়গায় রাম মন্দির নির্মিত হবে; বিকল্প হিসেবে নতুন করে বাবরি মসজিদ নির্মাণের জন্য মুসলিম ওয়াকফ বোর্ডকে অন্য কোথাও পাঁচ একর জমি প্রদান করা হবে।

রায়ের এতদিন পর বাবরি মসজিদের জায়গায় আগামী ১০ জুন শুরু হচ্ছে রাম মন্দিরের নির্মাণ কাজ, দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে এল অ্যান্ড টি সংস্থাকে।

উত্তরপ্রদেশের অযোধ্যায় অবস্থিত এই বাবরি মসজিদ নিয়ে ১৯৯২ সালে হিন্দু-মুসলিম সাম্প্রদায়িক দাঙ্গায় বহু মানুষের প্রাণহানি ঘটে। দাঙ্গার ঢেউ আছড়ে পড়ে বাংলাদেশেও।

ষোড়শ শতকের ঐতিহাসিক এই মসজিদের স্থানে একসময় রাম মন্দির ছিল বলে দাবি করে কট্টরপন্থী হিন্দুরা। অবশেষে বিষয়টি আদালত পর্যন্ত গড়ায়। সেখানকার রায় অনুযায়ী এবার ওই স্থানে রাম মন্দির নির্মাণ শুরু হচ্ছে।

১০ জুন সকাল ৮টায় প্রথমে আনুষ্ঠানিকভাবে শিবের আরাধনা হবে। তারপর সকাল ১০টায় শুরু হবে নির্মাণ কাজ। নির্মাণের উদ্বোধনে কে বা কারা উপস্থিত থাকবেন, কৌশলগত এবং নিরাপত্তার কারণে তা এখনই তা প্রকাশ করা হচ্ছে না।

গত ২৬ মে নির্মাণস্থলে গিয়েছিলেন রাম জন্মভূমি তীর্থক্ষেত্র ট্রাস্টের চেয়ারম্যান মোহন্ত নৃত্যগোপাল দাস। তিনি জানান, মন্দিরটির উচ্চতা হবে ১২৫ ফুট। এর মধ্যে মাটির তলায় থাকবে ১৮ ফুট। সেখানে থাকবে রামের মূর্তি। দ্বিতীয় তলা হবে ১৫ ফুট ৯ ইঞ্চি। এটাই হবে উপসনালয় তথা রামের দরবার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *